Home / প্রচ্ছদ / অতিবৃষ্টি ও বন্যার কারণে ক্ষতির মুখে কক্সবাজারের পান চাষিরা

অতিবৃষ্টি ও বন্যার কারণে ক্ষতির মুখে কক্সবাজারের পান চাষিরা

Ajit Himu 31-8-2015 (Korbanir Pashu)অজিত কুমার দাশ হিমু

অতিবৃষ্টি ও বন্যার কারণে কক্সবাজার জেলার অনেক এলাকায় পানের বরজ নষ্ট হয়ে গেছে। পাশাপাশি দেখা দিয়েছে পানের পচন রোগ। এতে লোকসানের মুখে পড়েছেন কৃষকেরা। পঁচন রোগ ঠেকাতে কৃষি কর্মকর্তাদের কাছ থেকে কোন দিক নির্দেশনাও পাচ্ছেন না বলে জানান পানচাষীরা। তবে এমন অভিযোগ অস্বীকার করেছেন স্থানীয় কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর।

বছরের পর বছর ধরে কক্সবাজার সদর, উখিয়া, টেকনাফ, মহেশখালী উপজেলায় পানের চাষ করছেন কৃষকেরা। বাজারে পানের চাহিদা ও দাম ভালো থাকায় এবার বেশি লাভের আশা করেছিলেন তারা। কিন্তু অতিবৃষ্টি ও বন্যার কারণে অনেক পানের বরজ হাঁটু পানিতে তলিয়ে গেছে। এতে নষ্ট হয়ে যাচ্ছে গাছ, আর পচে যাচ্ছে পাতা। পান ভেঙে বাজারে তুললেও নাম মাত্র দামে বিক্রি হচ্ছে বলে অভিযোগ কৃষকদের।

শুধু তাই নয়, পচন রোগের কারণেও ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে অনেক পান চাষি। কিন্তু রোগ নিরাময়ে কৃষি বিভাগের কোন পরামর্শ পাচ্ছেন না বলে জানান কৃষকরা।

অন্যদিকে অভিযোগ অস্বীকার করে পচন রোগের হাত থেকে পানকে বাঁচাতে বিভিন্ন পরামর্শ দেয়ার কথা জানালেন কক্সবাজার কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক।

কৃষি বিভাগ জানিয়েছেন, জেলায় ১ হাজার ৮শ’ ৬৩ হেক্টর জমিতে পানের আবাদ হয়েছে। এর মধ্যে বৃষ্টির কারণে ২০ হেক্টর জমির পান পচে নষ্ট হয়ে গেছে।

Leave a Reply

%d bloggers like this: