Home / প্রচ্ছদ / পর্ন সাইটে নিষেধ তুলেও বিতর্ক এড়াতে পারছে না ভারত

পর্ন সাইটে নিষেধ তুলেও বিতর্ক এড়াতে পারছে না ভারত

Indiaপর্ন সাইটের ওপর থেকে আংশিক নিষেধাজ্ঞা হটানোর পর নতুন করে শুরু হয়েছে বিভ্রান্তি এবং বিতর্ক। বাকি পর্নোগ্রাফি সাইটের ওপর নিষেধাজ্ঞা তুলে নিয়ে শুধুমাত্র শিশু পর্নোগ্রাফির ওপর নিষেধাজ্ঞা জারি রেখেছে সরকার। প্রশ্ন উঠছে, কোনও ওয়েবসাইটে শিশু পর্নোগ্রাফি রয়েছে কিনা তা কীভাবে জানা সম্ভব? দেশজোড়া সমালোচনার মুখে পিছু হটে প্রায় ৭০০টি পর্ন সাইটের উপর থেকে নিষেধাজ্ঞা হটানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে টেলিকম মন্ত্রক। মন্ত্রক সূত্রে খবর, শুধুমাত্র শিশু পর্নোগ্রাফির উপর নিষেধাজ্ঞা জারি থাকবে। টেলিকম অপারেটরদের প্রশ্ন, ‘‘পুরো বিষয়টাই খুব অস্পষ্ট। কোনও ওয়েবসাইটে শিশু পর্নোগ্রাফি রয়েছি কিনা তা আমরা কীভাবে পরীক্ষা করব?’’ইন্টারনেট সার্ভিস প্রোভাইডারদের তরফ থেকে রাজেশ চারিয়া জানিয়েছেন, ‘‘কোনও ওয়েবসাইটে শিশু পর্নোগ্রাফি রয়েছে কিনা তা দেখার দায়িত্ব সরকার আমাদের ওপর এ ভাবে জোর করে চাপিয়ে দিতে পারে না।’’

এর আগে সরকার ৮৫৭টি পর্ন সাইট ব্লক করার সিদ্ধান্ত নেওয়ায় দেশজোড়া সমালোচনার ঝড় ওঠে। অনেকেই কটাক্ষের সুরে বলতে থাকেন, বর্তমান সরকারের যাই পছন্দ নয়, তার উপরই নেমে আসছে নিষেধাজ্ঞা। যার নয়া সংযোজন ছিল ৮৫৭টি পর্ন সাইট। তবে কি এবার নাগরিকের বেডরুমেও উঁকি দেবে রাষ্ট্র?

এই সব সমালোচনার মুখে আজ তড়িঘড়ি উচ্চপর্যায়ের বৈঠক ডাকেন টেলিকমমন্ত্রী রবিশঙ্কর প্রসাদ। বৈঠকে ছিলেন তথ্যপ্রযুক্তি সচিব আর এস শর্মা এবং অতিরিক্ত সলিসিটর জেনারেল পিঙ্কি আনন্দ। বৈঠক শেষে টেলিকমমন্ত্রী জানান, যে সব সাইটে চাইল্ড পর্নোগ্রাফি সংক্রান্ত বিষয়বস্তু নেই, অবিলম্বে সেগুলির উপর থেকে ‘ব্লকিং’ তুলে দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হবে আইএসপিগুলিকে। সুপ্রিম কোর্টও বলেছিল, সব ধরনের পর্নোগ্রাফি সাইট ব্লক করে দেওয়া ব্যক্তি স্বাধীনতায় হস্তক্ষেপেরই নামান্তর। তবে আইএসপিগুলি সেই নির্দেশ ইতিমধ্যেই কার্যকর করেছে কি না, তা স্পষ্ট নয়। মঙ্গলবার রাত পর্যন্ত বিভিন্ন পর্নো সাইট খুলছে না বলে খবর। কিন্তু ‘চাইল্ড’ পর্নোগ্রাফিকে যে কোনও ভাবেই মদত দেওয়া উচিত নয়, সে বিষয়ে একমত সব পক্ষই।

-নাগরিককণ্ঠডটকম,ডেস্ক।

Leave a Reply

%d bloggers like this: