Home / প্রচ্ছদ / সাম্প্রতিক... / নির্বাচন সংক্রান্ত / পোকখালী আ’লীগ সম্পাদক রফিককে গ্রেফতারের প্রতিবাদে মিছিল সমাবেশ অব্যাহত

পোকখালী আ’লীগ সম্পাদক রফিককে গ্রেফতারের প্রতিবাদে মিছিল সমাবেশ অব্যাহত

Election (Rafiq) Sagor-16-5-16

এম আবু হেনা সাগর; ঈদগাঁও :

কক্সবাজার সদর উপজেলার পোকখালী ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের বারবার নির্বাচিত সাধারণ সম্পাদক ও জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের একনিষ্ট কর্মী কারা নির্যাতিত জননেতা রফিক আহমদকে গ্রেফতারের প্রতিবাদে গত ৪দিন ধরে ইউনিয়নের প্রতিটি ওয়ার্ডে ও পাড়া মহল্লায় মিছিল-সমাবেশ অব্যাহত রয়েছে। তার পক্ষে নির্বাচনী প্রচার-প্রচারণায় অংশ নিয়েছে সহধর্মীনি কহিনুর আক্তারসহ ছেলেমেয়েরা। সাথে আছে ইউনিয়নের প্রত্যন্ত গ্রামগঞ্জের হতবঞ্চিত ও অসহায় লোকজন। স্থানীয় জনগণ প্রতিদিন সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত গণসংযোগ করেও যাচ্ছে।

স্থানীয় মুরব্বী আবুতাহের হেলালী, নুরুজ্জামান, রশিদ আহমদ, আবুল বশরসহ অনেকে জানায়, দীর্ঘদিন যাবত এলাকার হতবঞ্চিত ও অসহায় জনগণের কল্যাণে কাজ করে যাচ্ছিলেন রফিক আহমদ। পরীক্ষিত ও বঙ্গবন্ধুর একনিষ্ট কর্মী রফিককে মনোনয়ন না দেওয়ায় এলাকাবাসীর অনুরোধে তিনি নাগরিক কমিটির ব্যানারে মনোনয়ন ফরম জমা দিয়েছেন। এদিকে একটি কুচক্রী মহল তার জনপ্রিয়তায় ঈর্ষান্বিত হয়ে তার বিরুদ্ধে নানা ষড়যন্ত্রে মেতে উঠছে। জনগণের কল্যাণের কথা মাথায় রেখে এ নেতা ১২ মে আদালতে আত্মসমর্পন করলে তাকে জামিন না দিয়ে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে বলে তার স্ত্রীর দাবী। এদিকে তাকে জেল হাজতে প্রেরণের খবর চতুর্দিকে ছড়িয়ে পড়লে মধ্যম পোকখালী, পশ্চিম পোকখালী, পূর্ব পোকখালী, ইছাখালী ও পূর্ব গোমাতলীসহ প্রতিটি ওয়ার্ড কিংবা পাড়া-মহল্লায় সাধারণ লোকজন তীব্র প্রতিবাদ মুখর হয়ে উঠে। পাশাপাশি তার মুক্তির দাবীতে প্রত্যন্ত গ্রামগঞ্জে পোস্টার, ব্যানারে ছেয়ে গেছে। এমনকি বর্তমান সময়ে নির্বাচনী মাঠ তার অনুকূলে রয়েছে বলে জানান অনেকে। তারই ধারাবাহিকতায় বিগত চারদিন যাবত চলছে তার মুক্তির দাবীতে মিছিল সমাবেশ। সমাবেশে ঐ এলাকার জনগণের একটাই দাবী, আগামী ইউপি নির্বাচনে বিপুল ভোটে নির্বাচিত করে জেল থেকে তাদের প্রিয় নেতাকে ছাড়িয়ে আনবে।

এদিকে ছেলেমেয়েরা কেঁদে কেঁদে পাড়া-মহল্লায় তার বাবার জন্য ভোট ভিক্ষা করে যাচ্ছে। সাথে বিভিন্ন ওয়ার্ডে গণসংযোগ ও চালিয়ে যাচ্ছে। বাড়ী সংলগ্ন স্থানে প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন এলাকার সুধী সমাজ ও সাবেক মেম্বারগণ।

বক্তারা বলেন, পোকখালীতে নাগরিক কমিটির ব্যানারে অসহায় জনগণ ঐক্যবদ্ধ হয়েছে। রফিক আহমদের মুক্তি ছাড়া আর কোন বিকল্প নেই। তাকে জেল থেকে বেরিয়ে আনতে একমাত্র অবলম্বন হল ইউপি নির্বাচনে তাকে বিজয়ী করা। আগামী ৪ জুন রফিককে বিপুল ভোটের মাধ্যমে বিজয়ী করে তাদের কাছে ফিরিয়ে আনবে বলে দীপ্ত শপথ গ্রহণ করেন। এসময় স্থানীয় বিপুল সংখ্যক জনতাও কান্নাজড়িত কন্ঠে দু’হাত উঁচু করে নেতৃবৃন্দের বক্তব্যের প্রতি একমত পোষণ করেন।

%d bloggers like this: