শনিবার, ১৩ অগাস্ট ২০২২, ০৯:২০ পূর্বাহ্ন

মোস্তাক চৌধুরী আনারস, সালাহউদ্দিন মোটর সাইকেল : জেলা পরিষদ নির্বাচনে প্রার্থীদের মাঝে প্রতীক বরাদ্দ

শহীদুল্লাহ্ কায়সার; কক্সভিউ :

চলতি বছরের ২৮ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিতব্য জেলা পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে দু’প্রার্থী প্রতীক পেয়েছেন। চেয়ারম্যান প্রার্থীদের মধ্যে আওয়ামী লীগ সমর্থকক মোস্তাক আহমদ চৌধুরী পেয়েছেন আনারস প্রতীক। তাঁর একমাত্র প্রতিদ্বন্দ্বী জাতীয় পার্টি (মঞ্জু) সমর্থিত প্রার্থী সালাহউদ্দিন মাহমুদ পেয়েছেন মোটর সাইকেল চেয়ারম্যান ছাড়া ৪টি সংরক্ষিত নারী এবং ১৩টি সাধারণ সদস্য পদে প্রার্থীদের মাঝে প্রতীক বরাদ্দ করা হয়।

১২ ডিসেম্বর সকালে সোমবার জেলা প্রশাসক ও রিটার্নিং অফিসার মোঃ আলী হোসেন প্রতীক বরাদ্দ করেন। এ সময় সহকারি রিটার্নিং অফিসার ও জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মোঃ মোজাম্মেল হোসেন প্রতীক বরাদ্দ কার্যক্রম পরিচালনা করেন। জেলা প্রশাসক কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত প্রতীক বরাদ্দ অনুষ্ঠানে প্রার্থীরা ছাড়াও তাঁদের নিকটজন উপস্থিত ছিলেন।

সাধারণ সদস্য পদের মধ্যে এবার ১২, ১৩ ও ১৫ নং ওয়ার্ডে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে না। ইতোমধ্যে ওয়ার্ড  তিনটিতে কোন প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী না থাকায় শামশুল আলম, মোঃ নুরুল হক এবং মোঃ শফিক মিয়া বেসরকারিভাবে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন। এছাড়া সংরক্ষিত নারী সদস্য পদের মধ্যে ৫ নং ওয়ার্ডের প্রতিদ্ব›দ্বী প্রার্থীরা মনোনয়নপত্র প্রত্যাহার করে নেয়ায় আশরাফ জাহান কাজল বেসরকারিভাবে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন।

সাধারণ সদস্য পদের ১২টি ওয়ার্ডের প্রার্থীদের মধ্যে ১নং ওয়ার্ডে আহমাদ উল্লাহ্ তালা, মনোয়ারুল ইসলাম চৌধুরী (মুকুল) টিউব ওয়েল, মিজানুর রহমান অটোরিক্সা এবং মো. জাহেদুল ইসলাম ফরহাদ হাতি প্রতীক পেয়েছেন।

২নং ওয়ার্ডে মোঃ কামাল উদ্দিন তালা, ইকবাল চৌধুরী টিউবওয়েল, মোঃ রুহুল আমিন বৈদ্যুতিক পাখা এবং লুৎফুর রহমান পেয়েছেন হাতি প্রতীক।

৩নং ওয়ার্ডের প্রার্থীদের মধ্যে আজিজুল হক (আজিজ) উটপাখি, আনোয়ার পাশা চৌধুরী টিউবওয়েল, মোঃ আইয়ুবুর রহমান তালা এবং শহিদুল ইসলাম মুন্না পেয়েছেন হাতি প্রতীক।

৪নং ওয়ার্ডের প্রার্থীদের মধ্যে আবু হেনা মোস্তফা কামাল ঘুড়ি, আবুল কাশেম ক্রিকেট ব্যাট, এ.টি.এম জায়েদ মোর্শেদ হাতি, জাহাংগির আলম টিউবওয়েল, মোঃ তারেক ছিদ্দিকী তালা, মেহেদী হাসান অটোরিক্সা, রিয়াজ খান রাজু বৈদ্যুতিক পাখা।

৫নং ওয়ার্ডের প্রার্থীদের মধ্যে এস.এম. জাহাঙ্গির আলম বুলবুল তালা, কমরুউদ্দিন আহমদ চৌধুরী হাতি, জন্নাতুল বকেয়া অটোরিক্সা, মাহবুব রহমান টিউবওয়েল, মোহাম্মদ বদরুদ্দোজা ঘুড়ি প্রতীক পেয়েছেন।

৬ নং ওয়ার্ডের প্রার্থীদের মধ্যে এম. আজিজুর রহিম তালা এবং মোঃ আবু তৈয়ব পেয়েছেন টিউবওয়েল।

৭ নং ওয়ার্ডের প্রার্থীদের মধ্যে আব্দুর রহিম টিউবওয়েল, জাহেদুল ইসলাম তালা, মোজাফ্ফর হোসেন পল্টু হাতি, মোহাম্মদ ওয়ালিদ ঘুড়ি এবং মোঃ জাহাঙ্গির আলম অটোরিক্সা প্রতীক পেয়েছেন।

৮নং ওয়ার্ডের প্রার্থীদের মধ্যে আ.ন.ম আমিনুল এহেছান বৈদ্যুতিক পাখা, মোক্তার আহমদ চৌধুরী তালা, মোহাম্মদ ওমর ফারুক ঘুড়ি, মোঃ শাহনেওয়াজ তালুকদার অটোরিক্সা, এবং সোলতান আহমদ পেয়েছেন টিউবওয়েল প্রতীক।

৯নং ওয়ার্ডের প্রার্থীদের মধ্যে আজিজুর রহমান টিউবওয়েল, মঞ্জুরুল হক চৌধুরী অটোরিক্সা, মিজানুল হক তালা, মোঃ আরিফুল ইসলাম হাতি, মোঃ জুনায়েদ কবির ঘুড়ি এবং সোহেল জাহান চৌধুরী পেয়েছেন বৈদ্যুতিক পাখা।

১০ নং ওয়ার্ডের প্রার্থীদের মধ্যে উজ্জল কর অটোরিক্সা, মাহমুদুল করিম তালা, মোঃ নুরুজ্জামান টিউবওয়েল, মোঃ রুহুল আমিন হাতি এবং রফিক উদ্দিন পেয়েছেন বৈদ্যুতিক পাখা।

১১নং ওয়ার্ডের দু’প্রার্থীর মধ্যে পলক বড়ুয়া টিউবওয়েল এবং শামশুল আলম মণ্ডল পেয়েছেন তালা প্রতীক।

১৪নং ওয়ার্ডের দু’প্রার্থীর মধ্যে মোঃ খায়রুল আমিন টিউবওয়েল এবং হুমায়ুন কবির চৌধুরী পেয়েছেন তালা প্রতীক।

নারীদের জন্য সংরক্ষিত ৪টি ওয়ার্ডে মধ্যে ১নং ওয়ার্ডের সদস্য পদপ্রার্থী প্রীতি কণা শর্মা পেয়েছেন ফুটবল, মশরফা জন্নাত বই এবং শিরীন ফরজানা পেয়েছেন হরিণ। ২নং ওয়ার্ডের প্রার্থীদের মধ্যে আসমা-উল-হুসনা ফুটবল, মোছাম্মদ উম্মে কুলসুম দোয়াত-কলম এবং সৈয়দা নিঘাত আমিন পেয়েছেন বই। ৩নং ওয়ার্ডের প্রার্থীদের মধ্যে আনোয়ারা বেগম টেবিল ঘড়ি, ফিরোজা বেগম দোয়াত-কলম, রেহেনা খানম ফুটবল, লুৎফুন্নাহার বই এবং শাহানা বেগম পেয়েছেন হরিণ প্রতীক। ৪নং ওয়ার্ডের প্রার্থীদের মধ্যে তাহমিনা চৌধুরী লুনা হরিণ, রোমেনা আকতার টেবিল ঘড়ি, শাহেনা আকতার ফুটবল এবং হামিদা তাহের পেয়েছেন মাইক প্রতীক।

https://www.facebook.com/coxviewnews

Design BY Hostitbd.Com