Home / প্রচ্ছদ / সাম্প্রতিক... / ঈদগাঁওতে বাহারী নামের কয়েলে বাজার সয়লাব

ঈদগাঁওতে বাহারী নামের কয়েলে বাজার সয়লাব

এম আবু হেনা সাগর, ঈদগাঁও

কক্সবাজার সদর উপজেলার ঈদগাঁও বাজারে বাহারী নামের মশার কয়েলে বাজার সয়লাব হয়েছে। এক শ্রেণীর অসাধু ব্যবসায়ী নিম্ন মানের এসব কয়েল বিক্রি করে মোটা অংকের টাকা হাতিয়ে নিলেও মশা তাড়ানোর নামে মানুষ মারার ফাঁদ বসিয়েছে এমনতর অভিযোগ ভুক্তভোগীদের।

 খোঁজ নিয়ে জানা যায়, নানা নামের কয়েলের ব্যবসা বাজারে জমজমাট আকার ধারন করছে। বাস্তবে এগুলো মশার কয়েল নয়, ছদ্মবেশে মানুষ মারার ফাঁদ। সূত্র জানায়, নানা রোগের শক্তিশালি এক উপাদান এসব মশার কয়েলে রয়েছে। নামে বেনামের কোম্পানীর সেলসম্যানেরা স্বল্পমূল্যে এসব কয়েল ধরিয়ে দিচ্ছেন দোকানিদের। অথচ প্যাকেটের গায়ে লেখা চড়া মূল্য। দোকানদারও অধিক মুনাফার আশায় ঠকাচ্ছে ক্রেতাদের। মারাত্মক ক্ষতিকর এসব কয়েল উত্পাদন ও বাজারজাত করছে একাধিকটি দেশীয় বেনামি কারখানা।

 ব্যবসায়ীদের অভিযোগ, মশার কয়েল উত্পাদন ও বাজারজাত করার ক্ষেত্রে দেশে সুস্পষ্ট নীতিমালা থাকলেও তা মানছে না এসব অসাধু কারখানার মালিকরা। কিন্তু এক শ্রেণির ব্যবসায়ী সরকারি আইনকে তোয়াক্কা না করে উচ্চমাত্রার এবং ক্ষেত্রবিশেষে অত্যন্ত ক্ষতিকর উপাদান সমৃদ্ধ মশার কয়েল উত্পাদন করে বাজারজাত করছে।

 জানা যায়, এসব কয়েল ব্যবহারে মানুষের শরীরে বিশেষ করে শিশুদের শ্বাসকষ্ট মতো ভয়াবহ রোগ হতে পারে। বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই এসব কয়েলের প্যাকেটের গায়ে উল্লেখিত রেজিস্ট্রেশন নম্বর সঠিক না হওয়ায় ভোক্তা সাধারণ প্রতিনিয়ত প্রতারিত হচ্ছেন। বেশি মুনাফার আশায় মহলটি প্যাকেটের গায়ে স্বাভাবিকের চেয়ে বেশি দাম উল্লেখ করে ভোক্তাদের প্রতারণার পাশাপাশি মূল্য সংযোজন কর ফাঁকি দিয়ে সরকারি রাজস্ব আদায়কেও ক্ষতিগ্রস্ত করছেন।

Leave a Reply

%d bloggers like this: