Home / প্রচ্ছদ / সাম্প্রতিক... / জাল টাকা আতংকে ক্রেতা-বিক্রেতারা : ঈদগাঁওর কোরবানীর পশুর হাটে দেশীয় গরু মহিষের সয়লাব

জাল টাকা আতংকে ক্রেতা-বিক্রেতারা : ঈদগাঁওর কোরবানীর পশুর হাটে দেশীয় গরু মহিষের সয়লাব

এম. আবু হেনা সাগর; ঈদগাঁও :

প্রতি বছরের ন্যায় এ বছরও ব্যাপক পরিসরে জেলা সদরের বৃহত্তর ঈদগাঁও বাজারের কোরবানীর পশুর হাটে দেশীয় গরু-মহিষের সয়লাব হয়ে উঠেছে। তবে দূর দুরান্তের কিংবা স্থানীয় ক্রেতারা এসব কোরবানীর পশুর দাম নিয়ে বিপাকে পড়েছে। কেউ এখন থেকে গরু-মহিষ কিনলেও অনেকে দরদাম যাচাই বাছাই করতে বাজারে এসেছে। ক্রেতা-বিক্রেতা উভয়দের মাঝে জাল টাকা আতংকে বিরাজ করছে। কক্সবাজার সদর উপজেলার ঈদগাঁও বাজারের ঐতিহ্যবাহী বিশাল কোরবানীর পশুর হাটে বৃহত্তর ঈদগাঁও তথা সাত ইউনিয়নের প্রত্যন্ত গ্রামাঞ্চল ছাড়াও পার্শ্ববর্তী রামুর রশিদ নগর, ঈদগড়, চকরিয়ার খুটাখালীর গ্রামগঞ্জের দীর্ঘদিন ধরে পালিত পশু গরু-মহিষ এ বাজারে বিক্রি করতে আনতে দেখা যায়। এবারের কোরবানীর পশুর হাটে সে তুলনায় ভীনদেশীয় পশুর দেখা মিলেনি।

এদিকে ২৬ আগষ্ট বিকালে ঈদগাঁও বাস স্টেশনের পশুর হাট পরিদর্শনকালে এমন চিত্র চোখে পড়ে। চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কের দু-পাশে কোরবানীর পশু গরু-মহিষের ভিড়ে লক্ষনীয়। সেই সাথে ক্রেতা-বিক্রেতাদের উপস্থিতি চোখে পড়ার মত।

অন্যদিকে মহাসড়কের উপর গরুর হাট বসার কারণে দুরপাল্লার যানবাহন সহ স্থানীয় ছোট বড় গাড়ী চলাচল করতে গিয়ে চালকরা না ভাবে বেকায়দায় পড়েছে। তবে কয়েক চালকের মতে, মহাসড়কের উপর থেকে গরু বাজার সরানোর দাবী তুলেন। প্রতি বছরের আলোকে এবছরও ঈদগাঁও বাসস্টেশনের কেজি স্কুল গেইট থেকে শুরু করে কলেজ গেইট পর্যন্ত প্রায় এক কিলোমিটার সড়কের দু’পাশ জুড়েই গরু বাজার জমজমাট। চৌফলদন্ডী থেকে গরু বিক্রি করতে আসা কয়েক জনের সাথে আলাপকালে জানা যায়, ক্রেতারা এখনো পর্যন্ত কোরবানীর পশুর ক্রয়ের সিদ্ধান্ত নেয় নি। তবে পশুর দরদাম কিংবা বরাত হিসাবে টাকার অংক মিলাতে গিয়ে হিমশিম খাচ্ছে।

অপর দিকে দুয়েকজন কোরবানী পশু ক্রেতার সাথে কথা হলে তারা এবছরের প্রথম বাজারের দিন পশু কিনতে আগ্রহী বলে জানান। আবার ইসলামাবাদের ইউসুফেরখীল এলাকার এক ব্যক্তির বৃহৎ একটি গরু হাটে এনেছে। তবে দাম হাকিয়েছে ৪ লক্ষ টাকা। এক ক্রেতা ২ লক্ষ ২০ হাজার টাকা দর দিলেও গরুটি বিকিকিনি হয়নি বলে জানান ওই গরুর মালিক। এদিকে এ বিশাল কোরবানী বাজার পরিচালনা কমিটির পক্ষ থেকে একাধিকজন পুরো বাজার এলাকায় পরিদর্শক নিয়োগ করেছে। পাশাপাশি পকেটমার, ছিনতাইকারী, ঝাপটাবাজ ও জালনোট চক্রের কবল থেকে ক্রেতা বিক্রেতাদের রক্ষার লক্ষে সার্বক্ষণিক পুলিশি টহল জোরদার থাকতেও দেখা যায়। সব মিলিয়ে ঈদগাঁওর প্রথম কোরবানীর হাট বাজার জমজমাট ভাবে শুরু হলো।

Leave a Reply

%d bloggers like this: